বৃষ্টি থাকবে আরও যত দিন!

দেশজুড়ে থেমে থেমে বৃষ্টি হবে আরও তিনদিন। ধীরে ধীরে কমে আসবে গরমের আধিক্য,

শুরু হবে হিমেল হাওয়া বলে জানিয়েছেন, আবহাওয়া অফিস। মঙ্গলবার ভোর থেকেই রাজধানীসহ সারা দেশে থেমে থেমে বৃষ্টি হয়েছে।

সন্ধ্যা ৬টা পর্যন্ত ঢাকায় বৃষ্টি হয়েছে ২৭ মিলিমিটার। এই সময়ে সর্বোচ্চ বৃষ্টি হয়েছে সাতক্ষীরায়, ৯১ মিলিমিটার।

১৮ তারিখ থেকে ২১ তারিখ পর্যন্ত সারা দেশে থেমে থেমে বৃষ্টি হবে আগে থেকেই জানিয়েছিল আবহাওয়া অধিদপ্তর।

আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ রুহুল কুদ্দুস গণমাধ্যমকে বলেন, এখন যে বৃষ্টি হচ্ছে তা ২১ তারিখ পর্যন্ত থাকার সম্ভাবনা আছে।

এখন বৃষ্টির কারণ হচ্ছে পূবালী ও পশ্চিমা বায়ুর সংযোগ। থেমে থেমে বৃষ্টি নাগরিক জীবনে স্বস্তি বয়ে আনলেও তা বেশি মাত্রায় হলে অস্বস্তির কারণ হতে পারে কৃষকদের জন্য। এই সময়ে বৃষ্টি বেশি হলে শীতকালীন আগাম শাক-সবজি আবাদে বাড়বে অপেক্ষা। আবহাওয়া

অধিদপ্তরের পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, পশ্চিম বঙ্গোপসাগর ও তৎসংলগ্ন এলাকায় একটি লঘুচাপের সৃষ্টি হয়েছে। ভারতের তেলেঙ্গানা ও তৎসংলগ্ন এলাকায় বিরাজমান লঘুচাপটি কিছুটা সরে গিয়ে বর্তমানে মধ্যপ্রদেশ এলাকায় অবস্থান করছে।

দক্ষিণ-পশ্চিম মৌসুমি বায়ু দেশের উত্তরাঞ্চল থেকে বিদায় নিয়েছে। মৌসুমি বায়ু দেশের অন্যত্র মোটামুটি সক্রিয় এবং উত্তর বঙ্গোপসাগরে তা মাঝারি অবস্থায় রয়েছে। রংপুর, রাজশাহী, ময়মনসিংহ, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল,

চট্টগ্রাম ও সিলেট বিভাগের অধিকাংশ জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা হাওয়াসহ হালকা থেকে মাঝারি ধরনের বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। সেই সঙ্গে দেশের কোথাও কোথাও মাঝারি থেকে ভারি বর্ষণ হতে পারে। সারা দেশে দিন এবং রাতের তাপমাত্রা ১ থেকে ২ ডিগ্রি সেলসিয়াস হ্রাস পেতে পারে।

আবহাওয়াবিদ রুহুল কুদ্দুস বলেন, উত্তর বঙ্গোপসাগর ও বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকায় বায়ুচাপের তারতম্যের আধিক্য বিরাজ করছে।

এর প্রভাবে বাংলাদেশের উপকূলীয় এলাকা, উত্তর বঙ্গোপসাগর এবং সমুদ্র বন্দরগুলোর উপর দিয়ে ঝড়ো হাওয়া বয়ে যাওয়ার সম্ভাবনা আছে। তীব্র বৃষ্টিপাতও হতে পারে। তবে ভারতের তেলেঙ্গনাতে যে লঘুচাপ রয়েছে সেটির প্রভাব বাংলাদেশে পড়বে না বলে জানান এই আবহাওয়াবিদ।

বললেন, সেটি বর্তমানে মধ্যপ্রদেশে সরে যাচ্ছে। শীত কবে আসছে, এমন প্রশ্নে রুহুল কুদ্দুস বলেন, ‘এই বৃষ্টি শেষে একটু হিমেল ভাব আসবে। উত্তরাঞ্চলে তখন রাতে একটু ঠান্ডা লাগবে, সঙ্গে হালকা কুয়াশাও থাকবে।

কৃষি আবহাওয়া তথ্য পদ্ধতি উন্নতকরণ প্রকল্পের সিনিয়র মনিটরিং অ্যান্ড ইভেলুয়েশন অফিসার ফারহানা হক বলেন, ‘এই বৃষ্টি খুব বড় প্রভাব পড়বে না শীতকালীন আগাম ফলনে।

তবে আমাদেরকে ব্যবস্থা নিয়ে রাখতে হবে। এখনকার বৃষ্টিটা কিন্তু সারা দেশেই হচ্ছে না। কিছু কিছু অঞ্চলে হচ্ছে। তবে বেশি বৃষ্টি হলে সমস্যা হবে।’ কয়েক দিন ধরে উপকূলীয় অঞ্চলে ৩ নম্বর সতর্ক সংকেত দেখিয়ে যেতে বলেছে আবহাওয়া অফিস।
সূত্র বিডি ২৪ লাইভ

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *