প্রতিমন্ত্রীর উদ্দেশে যা বললেন ফারুকী

নেট দুনিয়ায় চলছে তুমুল সমালোচনার ঝড়। নারীর প্রতি অশ্লীল ও অবমাননাকর মন্তব্য করার অভিযোগে সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সমালোচনার মুখে পড়া তথ্য প্রতিমন্ত্রী ডা. মুরাদ হাসানের একটি ফোনালাপ ভাইরাল হয়েছে ফেসবুকে। আর এতে নতুন করে তোপের মুখে পড়েছেন প্রতিমন্ত্রী। সেই ফোনাআলাপে ছিলেন চিত্রনায়িকা মাহিয়া মাহি ও চিত্রনায়ক ইমন।

এদিকে নির্মাতাদের মধ্যে তুমুল জনপ্রিয় মোস্তফা সরয়ার ফারুকী তীব্র সমালোচনা ও ক্ষোভ জানিয়েছেন মুরাদ হাসানকে নিয়ে। তার মন্ত্রিত্ব থাকা নিয়েও প্রশ্ন তুলেছেন আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্রাঙ্গনেও সুপরিচিত এই নির্মাতা।

মোস্তফা সরয়ার ফারুকী সোমবার নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজে লিখেছেন, ‘আগের দিন দেখলাম প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী বেগম খালেদা জিয়ার নাতনিকে নিয়ে অশ্লীলতম ভাষায় প্রজাতন্ত্রের একজন চাকর কথা বললেন।

‘তার পরদিন সেই একই লোক এক অনুষ্ঠানে গিয়ে পুলিশ ভাইদের নসিহত করলেন যাতে তারা কারও সঙ্গে ব্যবহার খারাপ না করেন। তার পরদিন শুনলাম উনি রেপ করার থ্রেট দিচ্ছেন কাউকে। এখন আপনারাই বলেন, এমন দেশটি কোথায় খুঁজে পাবেন?’

ক্ষুব্ধ ফারুকী লেখেন, ‘এইসব দেখিয়া শুনিয়া একজন নাগরিক হিসাবে আমি যার পর নাই ক্ষুব্ধ। ’ খ্যাতিমান এ নির্মাতা মনে করছেন, মন্ত্রিসভার অন্য সদস্যরা এখন মুরাদের সঙ্গে এক টেবিলে বসতে লজ্জা বোধ করবেন।

তিনি লেখেন, ‘এই ছোট্ট জীবনে আমার সুযোগ হইছে দুয়েকজন মন্ত্রী দেখার। আমি বিশ্বাস করি তারা কেউই চাইবেন না এই লোক তাদের বিজ্ঞাপন হয়ে উঠুক।’

ফারুকী এখন ব্যস্ত সময় পার করছেন তার নো ল্যান্ডস ম্যান সিনেমা নিয়। সিনেমাটি ইতোমধ্যে বেশ কয়টি আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে ঘুরে এসেছে। এতে অভিনয় করেছেন নওয়াজ উদ্দিন সিদ্দিকী, তাহসান খানসহ অনেকে।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *